আদর্শ স্কুলের অভিভাবকদের বিক্ষোভ

শিক্ষার্থীদের পর এবার ফতুল্লার দাপা আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষকের অপসারন এবং চাঁদাবাজী মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবি করলেন অভিভাবক মহল। শুক্রবার সকালে দাপা আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের অভিভাবকরা এই বিক্ষোভ করেন। এসময় সিরাজুল ইসলামসহ বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত চাঁদাবাজীর মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার ও প্রধান শিক্ষককে অপসারণের দাবীতে স্লোগান দিতে থাকেন।
এর আগে গত সোমবার রাতে স্কুলের পিয়ন ফখরুল আলমের সাথে সমকামিতার অভিযোগে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আহসান হাবিবকে গ্রেফতার করে ফতুল্লা মডেল থানা পুলিশ। এসময় আলামত হিসেবে সিসি টিভির ফুটেজ সংগ্রহ করে।
অভিভাবকরা জানান, যেখানে স্কুলের পিয়ন নিরাপদ না সেখানে স্কুলের ছাত্রীরা কি ভাবে নিরাপদ। অভিভাবকরা বলেন, আমরা আমাদের সন্তানদের নিয়ে বেশ চিন্তিত। এমন শিক্ষক থাকলে বিদ্যালয়ের ছাত্রীরা কতোটুকু নিরাপদে থাকেব এ নিয়েও তারা উদ্বেগ প্রকাশ করেন। স্কুলের প্রধান শিক্ষক আহসান হাবিব প্রায় রাতে স্কুলে পিয়ন ফখরুলকে নিয়ে অবস্থান করেন। গত সোমবার রাতে তাকে সমকামিতার অভিযোগে পুলিশ আটক করে নিয়ে যায়। আমরা এ প্রধান শিক্ষক আহসান হাবিবের বিচার দাবী করছি।
উল্লেখ্য, গত এক বছর পূর্বে আইনী জটিলতার কারণ দেখিয়ে বিদ্যালয়ের নির্বাচিত কমিটি বাতিল করে গোলাম মোস্তফার নেতৃত্বে একটি এডহক কমিটি গঠন হয়। ঐ কমিটি ৬ মাসের মধ্যে নির্বাচন দেয়ার কথা বললেও এখনো নির্বাচন দেয়নি। আর এ নিয়ে বিদ্যালয়ে নানা ধরনের ঝটিলতার সৃষ্টি হচ্ছে। বিভিন্ন সূত্রে জানাগেছে, গোলাম মোস্তফার নেতৃত্বাধীন এডহক কমিটির মেয়াদ গত বছরের নভেম্বর মাসে শেষ হয়। কিন্তু তারপরও তিনি বিদ্যালয়ের নিয়ন্ত্রণ করতে নানা ভাবে তৎপর রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *